Logo
শিরোনাম :
গোদাগাড়ীর পিরিজপুরে জাগ্রত কালি মন্দির প্রতিমা বিসর্জনের মধ্যে দিয়ে শেষ হলো গর্জনিয়ায় এক দিন মজুরের মৃত্যু !! চাঁপাই নবাবগঞ্জে প্রতিমা বিসর্জনের মধ্য দিয়ে দুর্গাপূজা শেষ রামুতে হরিনের মাংস বিক্রি,ভ্রাম্যমান আদালতের জরিমানা আদায় চাঁপাইনবাবগঞ্জে অসুস্থ পশু জবাই করে মাংস বিক্রি, আতঙ্কিত শহরবাসী চাঁপাইনবাবগঞ্জের ভারতীয় জাল রুপিসহ গ্রেফতার ৪ ছোট মহেশখালী ডেইলপাড়ায় চতুর্থ শ্রেণীর ছাত্র বলৎকার, গ্রেপ্তার ১, থানায় মামলা রোহিঙ্গাদের হাতে জাতীয় পরিচয় পত্র: জড়িতদের বিরুদ্ধে চলছে তদন্ত অশ্রুসিক্ত নয়নে দীর্ঘতম সৈকতে প্রতীমা বির্সজন বিরূপ প্রভাব পরিবেশে উখিয়ায় অপ্রতিরোধ্য বালি বাণিজ্য

বিয়ের প্রলোভনে শিক্ষার্থীকে একাধিকবার ধর্ষনের অভিযোগে রাসিক কর্মকর্তা গ্রেফতার

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ / ৪২ বার
আপডেট সময় : রবিবার, ৪ অক্টোবর, ২০২০

বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে রাজশাহী কলেজ পড়ুয়া এক শিক্ষার্থীকে লাগাতার ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে রাসিক কর্মকর্তার বিরুদ্ধে।

ওই শিক্ষার্থী রাজশাহী কলেজে স্নাতকে অধ্যায়নরত। রাজশাহী সিটি কর্পোরেশন প্রকৌশল বিভাগের সিনিয়র সহকারী পদে কর্মরত তাজমুরাদ লিটনের বিরুদ্ধে এ অভিযোগ উঠেছে।

এ ঘটনায় রোববার দিবাগত রাতে নগরীরর মতিহার থানায় ওই কলেজ শিক্ষার্থীর বড় বোন বাদী হয়ে একটি মামলা দায়ের করেছেন।

আটককৃত লিটন নগরীর বোয়ালিয়া থানাধিন তালাইমারী বাদুড়তলা এলাকার বাসিন্দা। তার পিতার নাম মো. মোসারফ।

’অভিযোগ সুত্র ও পুলিশের মাধ্যমে জানা যায়, গত এক বছর পুর্বে ওই শিক্ষার্থী সিটি কর্পোরেশনে বিশেষ কাজের জন্য যায়। সেখানেই রাসিকের কর্মকর্তা লিটনের সাথে তার পরিচয় হয়। সেই থেকে লিটনের সঙ্গে তাঁর প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। এরপর থেকে বিভিন্ন সময়ে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে লিটন একাধিকবার তাঁর সঙ্গে শারীরিক সম্পর্কে লিপ্ত হন।

সর্বশেষ গতকাল ৩ অক্টোবর ওই শিক্ষার্থীর বড় বোনের বাসায় বিয়ের কথাবার্তা বলার জন্য যায়। এ সময় ওই শিক্ষার্থীর বোন আপ্যায়নের জন্য খাবার কিনতে দোকানে যায়। ফিরে এসে দেখেন ঘরের দরজা ভেতর থেকে লাগানো। ওই সময় তিনি প্রতিবেশীদের ডেকে তাদের আপত্তিকর অবস্থায় হাতেনাতে ধরে ফেলেন।

এ সময় তাঁকে বিয়ের কথা বললে লিটন সবাইকে বুঝিয়ে পরে বিয়ে করবে বলে ধর্ষিতার বোনকে জানান। পরে মতিহার থানা পুলিশে খবর দিলে এসআই সুকান্ত ও সঙ্গীয় ফোর্স ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে তাদের আটক করে থানায় নিয়ে আসেন।

ওই শিক্ষার্থীর বড় বোন জানান, গতকাল শনিবার দুপুর ৩ টার দিকে পশ্চিম বুধপাড়া এলাকায় লিটন তাদের বিয়ের কথাবার্তা বলার জন্য যান। এসময় তাদের রুমে বসিয়ে বড় বোন দোকানে চা পাতা নিয়ে আসার জন্য যান। এসে দেখেন তার রুম ভিতর থেকে লাগানো। পরে রুম খুলতেই ওই শিক্ষার্থী তার বোনকে বলেন, আপা আমাদের বিয়ের ব্যবস্তা করেন। এ সময় লিটনকে বিয়ের জন্য অনুরোধ করা হলে লিটন বিয়ে করতে অস্বিকার করেন। তবে পরে বিয়ে করবে বলে জানায়। পরে মতিহার থানা পুলিশে খবর দেয়া হলে পুলিশ আমার বোন ও লিটনকে থানায় নিয়ে আসে।

জানতে চাইলে মতিহার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সিদ্দিকুর রহমান জানান, তদন্ত করে প্রাথমিক সত্যতা পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় থানায় মামলা রেকর্ড করা হয়েছে। মামলা নং-৫, তাং-০৪-১০-২০২০। ধর্ষিতা যুবতীকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালের (ওসিসি) ওয়ার্ডে ভর্তি করা হয়েছে। রোববার বেলা ১১টার দিকে ধর্ষক লিটনকে বিজ্ঞ আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে বলেও জানান ওসি।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর