Logo
শিরোনাম :
মহেশখালীর বসতবাড়ীতে আগুন,প্রয়োজনীয় আসবাবপত্র পুড়ে ছাই,ক্ষয় ক্ষতির পরিমাণ-৮ লক্ষ টাকা চকরিয়ার জনসভায় আ.লীগের যুগ্ন-সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ লবণের ন্যায্য মূল্য নিশ্চিতে উদ্যোগ নেওয়া হবে মহেশখালীতে পরকিয়া প্রেমের টানে গৃহবধূ উধাও  ভাসানচর ঘুরে রোহিঙ্গা ক্যাম্পে যা বললেন ইউসেফ আল দোবেয়ার কক্সবাজারে বঙ্গবন্ধু-বাংলাদেশ কর্ণার’ ও ‘স্বাধীনতা মঞ্চ’ উদ্বোধন বান্দরবানে ২৭ কোটি ৬৩ লাখ ভিত্তিপ্রস্তর উদ্বোধন কক্সবাজারে ২ পিকআপ সংঘর্ষে পথচারী নিহত ঈদগাঁওতে অক্ষরের উদ্যোগে রচনা প্রতিযোগিতার পুরুস্কার বিতরন সম্পন্ন রামু থানা পুলিশের মাদক ও সন্ত্রাস বিরোধি সাড়াশি অভিযান শুরু মহেশখালীতে আলোচিত গফুর হত্যা মামলার আসামি গ্রেফতার

বালুখালীর শীর্ষ ইয়াবা ব্যবসায়ী ছৈয়দ নুর কারাগারে

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ / ৯৪ বার
আপডেট সময় : রবিবার, ১ নভেম্বর, ২০২০

কক্সবাজারের উখিয়া উপজেলার পালংখালী ইউনিয়নের বালুখালীর শীর্ষ অপকর্মের হোতা,বহু মামলার আসামী ছৈয়দ নুর বাহিনীর প্রধান ছৈয়দ নুর একটি মারামারির মামলায় জামিন চাইতে গিয়ে কারাগারে গেছে।১ নভেম্বর কক্সবাজার জুডিসিয়্যাল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে বালুখালীর পানবাজারে গত ২৪ অক্টোবর সকালে দফায়-দফায় পালংখালী ইউপির প্যানেল চেয়ারম্যান নুরুল আবছার চৌধুরীর উপর হামলার ঘটনায় উখিয়া থানায় দায়ের করা মামলায় জামিন আবেদন করেন।ঘটনায় জড়িত তাঁর বাহিনীর অন্যান্য সদস্যদের জামিন মঞ্জুর করলেও ছৈয়দ নুরের জামিন আবেদন নামঞ্জুর করে জেলহাজতে প্রেরণের নির্দেশ দেয় আদালত।এদিকে ছৈয়দ নুরের জামিন আবেদন নামঞ্জুর করে জেলহাজতে প্রেরণের নির্দেশ দেওয়ার খবর শুনে বালুখালীতে নিরীহ-সহজ সরল শান্তিপ্রিয় মানুষের মাঝে স্বস্তি ফিরে আসে।অনেকেই সাধারণ মানুষের মাঝে মিষ্টি বিতরণও করে।ছৈয়দ নুর কারাগারে গেলেও তাঁর বাহিনীর অপরাপর সদস্যদের অপকর্ম থেমে যায় নি।স্থানীয় জনসাধারণের অভিমত ছৈয়দ নুর বাহিনীর অন্য সদস্যদেরও আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্ত মুলক শাস্তি দিলে বালুখালীতে অনেকটা শান্তিময় পরিবেশ বিরাজ করবে বলে জানান।ছৈয়দ নুর বাহিনীর সক্রিয় সদস্য শীর্ষ সন্ত্রাসী আকবর আহমদ, রিদুয়ান সিদ্দিক, আবু তাহের, ফরিদ আলম, জিয়াউল হক বাপ্পি,জাফর আলম,সোনা মিয়া, বুজুরুস মিয়া,আলমগীর, নুর আলম, ইকবাল হোসেন, মোহামমদুল হক,আশিক সহ প্রায়ই মাদক ব্যবসা সহ বহুমুখী অপকর্মে জড়িত বলে স্থানীয় সুত্রে প্রকাশ।মাদকমুক্ত বালুখালী গড়তে তাদের কে আইনের আওতায় আনা জরুরী বলে মনে করছেন উখিয়া বাসি।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর