Logo

ভাবির কাছে খেতে এসে ধর্ষণ, হঠাৎ ঢুকলো স্বামী!

অনলাইন ডেস্কঃ / ৭১ বার
আপডেট সময় : মঙ্গলবার, ২৪ নভেম্বর, ২০২০

নাটোরের বাগাতিপাড়ায় পাশের বাড়ির ভাবিকে বেশ কিছুদিন ধরে কুপ্রস্তাব দিচ্ছিলেন মুক্তার হোসেন। ভাবির স্বামী কাজের সুবাদে প্রায়ই বাইরে থাকায় সময়ে-অসময়ে ভাবির ঘরে আসতে চান মুক্তার।

হঠাৎ একদিন সেই সুযোগ হয়ে যায় মুক্তারের। ভাত খাওয়ার কথা বলে সম্প্রতি ভাবির ঘরে ঢোকেন তিনি। এ সময় রান্নাঘরে একা পেয়ে তাকে ধর্ষণও করেন মুক্তার। এ পর্যন্ত ঠিক ছিল, বিপত্তি বাঁধে তখনই; যখন সেই ভাবির ঘরে ঢুকে পড়ে তারই স্বামী!

এদিকে এ ঘটনায় পুরো এলাকাজুড়ে বেশ চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে। গত ২১ নভেম্বর মুক্তারের বিরুদ্ধে এমন অভিযোগ এনে নাটোরের বাগাতিপাড়া থানায় মামলা করেছেন ভুক্তভোগী গৃহবধূ। মামলার পরদিন অভিযান চালিয়ে মুক্তার হোসেনকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা গেছে, মাঝে মধ্যে ওই গৃহবধূর বাড়িতে যাতায়াত করতো প্রতিবেশী মুক্তার হোসেন। ১৮ নভেম্বর সকালের দিকে গৃহবধূর স্বামী রাজমিস্ত্রির কাজে বাইরে চলে যান। পরে সকাল ১১টার দিকে রান্না করছিলেন গৃহবধূ। এ সময় গৃহবধূর বাড়িতে আসেন মুক্তার। কথা বলার একপর্যায়ে ভাত খাওয়ার ইচ্ছে পোষণ করেন তিনি। এরপর পানি খেতে চাইলে গৃহবধূ পানি আনতে ঘরে ঢোকেন। এ সুযোগে গৃহবধূর ঘরে ঢুকে পেছন থেকে জড়িয়ে ধরে ধস্তাধস্তির একপর্যায়ে ধর্ষণ করে মুক্তার। এমন সময় ঘরে ঢুকে স্ত্রীকে ধর্ষিত হতে দেখে চিৎকার করে প্রতিবেশীদের ডাকতে থাকেন গৃহবধূর স্বামী। পরে মুক্তার পালিয়ে যায়।

এই প্রসঙ্গে বাগাতিপাড়া থানার ওসি নাজমুল হক বলেন, গত রোববার (২২ নভেম্বর) সকালে ভুক্তভোগী গৃহবধূকে নাটোর আধুনিক হাসপাতালে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয়েছে। এছাড়া গ্রেপ্তার মুক্তারকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর