Logo
শিরোনাম :
প্রেমিকের সঙ্গে পালাতে গিয়ে… সৌদি আরব থেকে আসা রোহিঙ্গাকে ক্যাম্পে হস্তান্তর  কুতুবদিয়ায় পূর্ণিমার জোয়ারে শতাধিক ঘরবাড়ি প্লাবিত বান্দরবানে জেএসেস সংস্কারপন্থী গ্রুপের ৬ নেতা হত্যাকাণ্ডের ঘটনার প্রধান আসামি গ্রেফতার পেকুয়ায় ধর্ষণের অপমান সইতে না পেরে মাদ্রাসা ছাত্রীর বিষপানে আত্মহত্যা! উখিয়ায় অগ্নিকাণ্ডে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারকে ঢেউটিন, নগদ টাকাসহ খাদ্য সামগ্রী দিলেন উপজেলা প্রশাসন এতিম কিশোরী কন্যা’কে ধর্ষণের চেষ্টা ডাকাত পুত্র গ্রেফতার! সাগরের ঢেউয়ে ধসে পড়লো জেলা পরিষদের রেষ্ট হাউজ সীতাকুণ্ডে তিন রোহিঙ্গা আটক করে পুলিশে দিলো জনতা ঈদগাঁওতে কোভিড-১৯ স্যাম্পল কালেকশন বুথ স্থাপনের দাবী ঐক্য পরিবারের

এস আলম গাড়ীর টিকেট কেটে ভূল নাম্বার গাড়ীতে উঠায় যাত্রীকে মারধর ও অতিরিক্ত অর্থ আদায়।

মফিজুর রহমান, মহেশখালী প্রতিনিধি: / ১৪২ বার
আপডেট সময় : মঙ্গলবার, ১৫ জুন, ২০২১

চট্টগ্রাম নতুন ব্রীজ এস আলম কাউন্টার থেকে বাশঁখালীর যাওয়ার ৯৯৬নং গাড়ির টিকেট কেটে ভূলে মহেশখালী যাওয়ার এস আলমের ১৪৫০নং গাড়ীতে উঠায় কাটালিয়া আলীম মাদ্রাসার কোরআনে হাফেজ ছাত্রকে মাঝপথে এসে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ ও মারধরের অভিযোগ উঠেছে গাড়ীতে দায়িত্বরত সুপারভাইজার ও ড্রাইভারের বিরুদ্ধে। এসময় মহেশখালীর গাড়ীতে উঠায় জোর করে অতিরিক্ত ১৮০ টাকা আদায় করা হয়েছে। ঘটনাটি ঘঠে সোমবার রাত ৮টার দিকে। এদিকে এস আলম গাড়ীতে হয়রানির শিকার কাটালিয়া আলীম মাদ্রাসার ছাত্র হাফেজ মোঃ আরফাত গাড়ীতে থাকা প্রতিবেদককে বলেন, আমি চট্টগ্রাম নতুন ব্রীজ থেকে বাঁশখালী যাওয়ার জন্য ১৬০ টাকা দিয়ে টিকিট নিয়ে এস আলম গাড়ীতে উঠে সিটে বসি। তখন একটু পরে আমি যে সিটে বসি সেই সিটে আরেকজন আসলে আমি মৌখিক ভাবে আপত্তি জানালে অন্যজন যে আসল সে সামনের সিটে বসে পড়ে। তখন কোন সমস্যা হয়নি। কিন্তু কিছুদূর চলন্ত অবস্থায় গাড়ীতে দায়িত্ব রত সুপারভাইজার এসে আমার টিকিট দেখতে চাইলে আমি দেখালে সে বলে তুই এই গাড়িতে উঠলি কেন? গাড়ির নাম্বার দেখে উঠলি না কেন বলে মা বোন ধরে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ ও মারধর করতে থাকে । এক পর্যায়ে ড্রাইভারসহ এসে আমাকে জোর করে মাঝ পথে নেমে দেওয়ার চেষ্টা করে।পরে পাশে থাকা যাত্রীদের হস্তক্ষেপে কোন রকম রক্ষা পায়। তারপর তারা আমার থেকে জোর করে অতিরিক্ত ১৮০টাকা আদায় করে। আমি এই রকম হয়রানির বিচার চাই। এদিকে পাশার সিটে বসে থাকা আরেক যাত্রী আব্দুল গণি বলেন,হয়ত ভূল করে গাড়ীতে উঠায় তার অপরাধ হল।কিন্তু গাড়ীর টিকিট চেক করা কি তাদের দায়িত্ব না? আজ যদি গাড়ীর টিকিক চেক করে যাত্রী উঠালে এ রকম হয়রানীর শিকার হত না। আরেক যাত্রী চট্টগ্রাম সরকারি সিটি কলেজের ছাত্র মিনহাজ উদ্দীন বলেন, ভূল হলে সমাধান আছে,তাই বলে যাত্রীকে এভাবে গালিগালাজ ও হয়রানি করা উচিত হয়নি। এদিকে অভিযুক্ত গাড়ীর সুপারভাইজার রিয়াদ(এহালাস) বলেন,আমার গাড়ীতে বাঁশখালীর যাত্রী উঠায় চেকার আমাকে ৩৪০টাকা জরিমানা করছে। তার কারণে আমার ক্ষতি হবে বিধায় উক্ত যাত্রীর সাথে কথা কাটাকাটি হয়েছে। এক পর্যায়ে ড্রাইভারসহ তার থেকে, তার সাথে থাকা টিকিট সহ ১৮০ টাকা আদায় করি।

এদিকে অভিযোগ আছে এস আলম গাড়ীতে যাত্রী হয়রানি নতুন নয়। তারা যাত্রীদের সাথে দুর্ব্যবহার সহ মাঝ পথ থেকে যাত্রী উঠানামাসহ অনেক অনিয়ম করে থাকেন। ঠিকই উক্ত গাড়ি করে বাঁশখালীর চাম্বল থেকে ২জন যাত্রী কেন উঠানে হয়েছে জিজ্ঞেস করায় অপরাপর যাতীর সাথেও খারাপ ব্যবহার করেন বলে অভিযোগ করেন আরেক যাত্রী। বলেন গাড়ীতে যে যাত্রী উঠছে সে আমার চাচা,আরেকজন সেও আমার চাচা। এদিকে উক্ত যাত্রীরা বলেন আমরা ভাড়া দিয়ে নিয়মিত যাতায়ত করি।
এদিকে এস আলম গাড়ীর উর্ধ্বতন কোন কর্মকর্তার সাথে যোগাযোগ করার জন্য তাদের থেকে নাম্বার বা নাম জানতে চাইলে তারা তা দিতে অস্বীকৃতি জানায়।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর